আলামতহীন হত্যাকান্ডের আসামি আটক

স্টাফ রিপোর্ট:: সিলেটে উবার চালক রেদওয়ান রশীদ চৌধুরী সৌরভ (৩০)-এর হত্যার সাথে জড়িত আব্দুল্লাহ আল মামুন ও এনাম-কে আটক করেছে মোগলাবাজার থানা পুলিশের একটি দল। শণিবার (১৫ মে) তাদেরকে আটক করা হয়। আটককৃত আব্দুল্লাহ আল মামুনকে বন্দরবাজারের হোটেল তাজমহল থেকে এবং এনামকে গোলাপগঞ্জ থানা এলাকা থেকে আটক করা হয়।

বিশ্বস্ত সুত্রে জানা যায়, মোগলাবাজার থানার ওসি মো. শামসুদ্দোহার নেতৃত্বে সৌরভ হত্যাকাণ্ডের সাথে জড়িত দুইজনকে আটক করা হয়েছে। এসময় তাদের কাছ থেকে সৌরভের ব্যাবহৃত মোবাইল ফোনসহ অন্যান্য জিনিস উদ্ধার করা হয়।

এর আগে, বৃহস্পতিবার রাত ১০টার দিকে সিলেট মেট্রোপলিটন পুলিশের মোগলাবাজার থানার হাজীগঞ্জ মুহাম্মদপুর এলাকার একটি ডোবা থেকে স্থানীয় জনতা ও পুলিশ তার লাশ উদ্ধার করে। জকিগঞ্জের কাজলসার ইউপির মৃত নুমান রশিদ চৌধুরীর ছেলে রেদওয়ান মঙ্গলবার সিলেট থেকে নিখোঁজ হন।

জানা গেছে সৌরভ সিলেট শহরের সোবহানীঘাটে এক আত্মীয়ের বাসায় থেকে উবার রাইড শেয়ার পেশায় নিয়োজিত ছিলেন। মোটরসাইকেলসহ তিনি ১১ মে নিখোঁজ হন। খোঁজখুজি করে পাওয়া না যাওয়ায় বৃহস্পতিবার সন্ধ্যায় সোবহানীঘাট পুলিশ ফাঁড়িতে জানানো হলে পুলিশ মোবাইল ট্র্যাকিং-এর মাধ্যমে সৌরভের অবস্থান শনাক্ত করে। বৃহস্পতিবার রাত ১০টার দিকে নগরীর মুহাম্মদপুর এলাকায় অভিযান চালিয়ে একটি ডোবা থেকে অর্ধগলিত লাশ উদ্ধার করে।

সৌরভের চাচা মামুনুর রশীদ চৌধুরী জানিয়েছেন, মঙ্গলবার তার ভাতিজা নিখোঁজ হয়েছিলেন। বৃহস্পতিবার রাতে সিলেটের মোগলাবাজার এলাকা থেকে লাশ উদ্ধার করা হয়েছে। তিনি বিস্তারিত কিছু বলতে পারেননি।

একাত্তরের কথা/এমএইচ